ঢাকা মঙ্গলবার, ১৪ই জুলাই ২০২০, ৩১শে আষাঢ় ১৪২৭


ছাত্রীর সঙ্গে শিক্ষকের যৌনালাপ, অতঃপর...


৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ১৫:৪০

আপডেট:
১৪ জুলাই ২০২০ ২২:০২

নীলফামারীর জলঢাকায় ৭ম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে অশালীন ফোনালাপ ও যৌন নিপীড়নের অভিযোগে প্রধান শিক্ষককে আটক করছে পুলিশ। শনিবার (৮ সেপ্টেম্বর) বিকালে জলঢাকা পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে তাকে আটক করা হয়।

আটককৃত শিক্ষকের নাম এ.কে.এম ওয়ারেছ আলী। তিনি জলঢাকা পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক।

গ্রেপ্তার শিক্ষক দীর্ঘদিন থেকে ওই প্রতিষ্ঠানের ৭ম শ্রেণির ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। ছাত্রীকে উপবৃত্তির টাকা দেবার কথা বলে একা তার বাসায় যাওয়ার কথা বলে। এক সময় মোবাইল ফোনের একটি সিমও কিনে দেয় ছাত্রীটিকে। প্রতিদিন রাতে মোবাইল ফোনে তার সঙ্গে অশালীন যৌনালাপ করত ওই অভিযুক্ত শিক্ষক ওয়ারেছ আলী।

এক পর্যায়ে বিষয়টি মেয়েটি তার পরিবারকে জানায়। এ ঘটনায় মেয়েটির নানি আমেনা বেগম বাদী হয়ে শনিবার জলঢাকা থানায় অভিযোগ করেন।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জলঢাকা থানার অফিসার ইনচার্জ মোস্তাফিজার রহমান বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এমএ