ঢাকা শুক্রবার, ১৪ই আগস্ট ২০২০, ৩০শে শ্রাবণ ১৪২৭


টকশোতে কথা বলা সহজ, কিন্তু রাজপথে থাকা কঠিন: রুমিনের উদ্দেশে শামা ওবায়েদ


১২ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ১৭:৪৪

আপডেট:
১৪ আগস্ট ২০২০ ০১:৩৩

খালেদা জিয়াকে নিয়ে একটি খোলা চিঠি লিখেছেন বিএনপির সংসদ সদস্য ও সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা। ফেসবুকে প্রকাশ পাওয়া সেই চিঠির নিচে দলটির কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শামা ওবায়েদ মন্তব্য করেছেন, টকশোতে কথা বলা সহজ, রাজপথে থাকা কঠিন।

শেয়ারের কয়েক মিনিটের মধ্যে শামা ওবায়েদ কমেন্ট করেন, ‘ইট ইজ ইজি টু রাইট ‘খোলা চিঠি’ অ্যান্ড টক ইন শো’স বাট ইট ইজ ডিফিকাল্ট টু বি অন দ্য স্ট্রিটস’। অর্থাৎ খোলা চিঠি লেখা এবং টকশোতে কথা বলা সহজ, কিন্তু রাজপথে থাকা কঠিন।


খালেদা জিয়ার উদ্দেশে ওই চিঠিতে রুমিন লিখেছেন, ‘কেমন আছেন?’ আর সব চিঠির মতো এই প্রশ্নটা করছি না শুরুতেই। কারণ আপনার ক্ষেত্রে এই প্রশ্নটা ভীষণ অবান্তর। ছয় মাসের মতো হয়ে গেল শেষবার আপনাকে দেখেছি সামনা-সামনি, হাসপাতালের প্রিজন সেলে।

কষ্টে ব্যথায় যন্ত্রণায় বারবার কুঁকড়ে যাচ্ছিলেন আপনি। খবর পাই আপনার অবস্থা প্রতিদিন আরও খারাপের দিকে যায়। আপনি খারাপ আছেন, ভীষণ খারাপ আছেন।

চিঠির শেষ দিকে তিনি লিখেন–এতবড় দল আপনার, কিন্তু দুই বছরের বেশি জেলে থাকার পরও সেই বিশাল দল সরকারকে বাধ্য করতে পারেনি আপনাকে মুক্তি দিতে, এটি ভেবে কি আপনার মনে কষ্ট হয় খুব?

আগেই বলেছি–অনেকে ‘কিছু না’ থেকে ‘অনেক কিছু’তে পরিণত হয়েছেন আপনার আশীর্বাদে। আপনার এই দুর্দিনে আমাদের দায়িত্ব আমরা যথাযথভাবে পালন করতে পারিনি—এই অপরাধবোধ আমাকে তাড়া করে বেড়ায় প্রতিটা মুহূর্তে।

এদিকে, রুমিন ফারহানাকে উদ্দেশ্য করে শামা ওবায়েদের এমন বাঁকা মন্তব্যে দু’জনের মধ্যে দ্বন্দ্বের বিষয়টিই ফুটে উঠছে বলে মনে করেন অনেকে। একাদশ জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনের এমপি পদে এ দু’জনের নাম আলোচনায় ছিল। শেষ পর্যন্ত রুমিন ফারহানাকে মনোনয়ন দেয় বিএনপি।