ঢাকা রবিবার, ২০শে অক্টোবর ২০১৯, ৫ই কার্তিক ১৪২৬


বিহারীদের ওপর হামলা ও মিথ্যা মামলার ঘটনা অমানবিক: মেসবাহ কামাল


৯ অক্টোবর ২০১৯ ১৯:৫৮

আপডেট:
২০ অক্টোবর ২০১৯ ০৫:১৪

ছবি-নতুনসময়

রাজধানীর মোহাম্মদপুরে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুতের দাবিতে আন্দোলনরত বিহারীদের ওপর হামলা ও মামলার বিষয়টি অমানবিক বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক মেসবাহ কামাল।

বুধবার (৯ অক্টোবর) জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুতের দাবিতে আন্দোলনরত বিহারীদের ওপর হামলা ও মামলার প্রতিবাদে উর্দু স্পীকিং পিপলস ইউথ রিহ্যাবিলিটেশন মুভমেন্ট আয়োজিত এক মতবিনিময় সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

অধ্যাপক মেজবাহ কামাল বলেন, আদালতের স্থিতাবস্থা থাকার সত্তেও ডিপিডিসি বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করার চেষ্টা করেছে। এখানে তো আদালতকে অবমাননা করা হয়েছে। ক্যাম্পের বাসিন্দারা যখন প্রতিবাদ করেছে তখন তাদের ওপর বর্বরোচিত হামলা করা হয়েছে। হামলায় স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাবিবুর রহমান মিজান ও তার সহযোগীদেরও গ্রেপ্তার করতে হবে।

বাংলাদেশ মানবাধিকার ব্যুরো'র মহাসচিব ড. মোহাম্মদ শাহজাহান বলেন, ফ্রি বিদ্যুতের জন্য রিটে আমি আইনজীবী হিসেবে ছিলাম। আদালত আমাদের আবেদন শুনে ত্রাণ ও পুনর্বাসন মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্তকে স্থগিত করে সারাদেশের ৭০ টি ক্যাম্পের বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন না করতে স্থিতাবস্থার আদেশ দিয়েছেন। পরে রাষ্ট্র পক্ষ আপিল করলেও হাইকোর্টের দেয়া আদেশকে বহাল রেখেছেন আপিল বিভাগ।

তিনি বলেন, আদালতের আদেশ বহাল থাকা অবস্থায় বিদ্যুৎ সংস্থা ক্যাম্পের বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করার দুঃসাহস কিভাবে করে ? আমাদের উচিত ডিপিডিসি ও পিডিবির বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার মামলা করা উচিত।

উর্দু স্পীকিং পিপলস ইউথ রিহ্যাবিলিটেশন মুভমেন্টের সভাপতি মোঃ সাদাকাত খান ফাক্কু বলেন, ক্যাম্পের নেতৃবৃন্দ ও নিরীহ উর্দুভাষীদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত সকল মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করতে হবে। ডিপিডিসি আইনশৃংখলা বাহিনীকে ভুল বুঝানোর কারণে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এর দায় ডিপিডিসিকেই নিতে হবে।

তিনি আরো বলেন, সরকার আমাদের পুনর্বাসনের কথা বলছে। অন্যদিকে আমাদের উপর হামলা-মামলা করে ক্যাম্প উচ্ছেদের চেষ্টা করা হচ্ছে। আমাকে ও আমার সাধারণ সম্পাদকের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দেয়া হয়েছে। ঘটনার সময় দেশে না থাকলেও চার্জশিটে নাম দেয়া হয়েছে।

কাউন্সিলর হাবিবুর রহমান মিজানের গুন্ডাপান্ডারা বিদ্যুতের দাবিতে আন্দোলনরত উর্দুভাষীদের ওপর হামলা চালিয়েছে। কাউন্সিলর মিজান ও তার গুন্ডাপান্ডাদের গ্রেপ্তার করার দাবিও জানান বিহারীদের এই নেতা।

মতবিনিময় সভায় মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন ইউএসপিওয়াইআরএম'র সাধারণ সম্পাদক শাহিদ আলি বাবলু।

মতবিনিময় সভায় আয়োজক সংগঠনের সভাপতি মোঃ সাদাকাত খান ফাক্কুর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, এমআরডিএম'র সভাপতি ওয়াসী আলম বশির, ইউএসপিওয়াইআরএম'র সহ-সভাপতি আব্দুর রশিদ খান বিরেন, যুগ্ন-সাধারণ সম্পাদক মোক্তার হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ শাকিল, মঞ্জুর রেজা খান, প্রচার সম্পাদক কামাল,উর্দুভাষী যুব-ছাত্র আন্দোলনের সভাপতি মোঃ ইমরান খান, সাধারণ সম্পাদক মাকসুদ আলম প্রমুখ।

নতুনসময়/আইকে