ঢাকা রবিবার, ২০শে অক্টোবর ২০১৯, ৫ই কার্তিক ১৪২৬


বন্ধ হয়ে গেল থমাস কুক, কর্মহীন ২২০০০ কর্মী


২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ১৩:১৬

আপডেট:
২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ১৩:১৬

ফাইল ছবি

ধস নামল থমাস কুক নামের ১৭৮ বছরের পুরোনো ভ্রমণ সংস্থায়। ফলে বেকার হয়ে পড়লেন ২২ হাজার কর্মী। এই সংস্থার হয়ে কমপক্ষে ৬ লাখ পর্যটক এখনও বিদেশে ভ্রমণ করছেন। তার মধ্যেই বন্ধ হয়ে গেল প্রাচীন এই ব্রিটিশ সংস্থা।

থমাস কুকের প্রধান পিটার প্রাঙ্ক হুসার জানিয়েছেন, কোম্পানি দেউলিয়া হয়ে গেছে। দেনা মেটানোর জন্য প্রয়োজনীয় অর্থ জোগাড় করতে ব্যর্থ হয়েছেন তারা। এত বছর ধরে যেসব পর্যটক, কর্মী পাশে ছিলেন তাদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন তিনি। কোম্পানিকে টেনে তুলতে না পারাকে নিজেদের ব্যর্থতা বলে উল্লেখ করেছেন তিনি।

এই ঘটনায় ব্রিটিশ বিমান পরিবহন সংস্থা জানিয়েছে, বন্ধ হয়ে গেছে থমাস কুক। বিদেশে আটকে থাকা দেড় লাখেরও বেশি পর্যটককে দেশে ফেরাতে বিমান পাঠানো হবে।

অন্যদিকে, বিদেশের বিভিন্ন জায়গায় আটকে থাকা পর্যটকদের উদ্দেশ্য কোম্পানির তরফ থেকে জানানো হয়েছে, সংস্থার সব ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে। পরিবর্তি নির্দেশিকা না দেওয়া পর্যন্ত তারা দেশে ফিরতে পারবেন না।

বছরে ১ কোটি ৯০ লাখ পর্যটককে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে নিয়ে যেত থমাস কুক। ছিল নিজস্ব বিমান, হোটেল এবং রিসোর্ট। ১৮৪৮ সালে প্রতিষ্ঠিত এই কোম্পানির মাথার ওপর ছিল ২১ লাখ কোটি ডলার ঋনের দায়।

সেই টাকা শেষপর্যন্ত জোগাড় করতে ব্যর্থ হয় সংস্থাটি। বিদেশে আটকে থাকা ৬ লাখ পর্যটকের মধ্যে দেড় লাখই ব্রিটিশ নাগরিক। তাদের ফিরিয়ে আনার জন্য বিমানের ব্যবস্থা করছে ব্রিটেন সরকার।