ঢাকা রবিবার, ২০শে অক্টোবর ২০১৯, ৫ই কার্তিক ১৪২৬


লাশ না দেখলেও আবরারের কবর দেখতে যাচ্ছেন ভিসি!


৯ অক্টোবর ২০১৯ ১৪:১৯

আপডেট:
২০ অক্টোবর ২০১৯ ০৫:০২

আবরারের গ্রামের বাড়ি কুষ্টিয়ায় যাচ্ছেন বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ভিসি অধ্যাপক সাইফুল ইসলাম। বুধবার (৯ অক্টোবর) সকালে তিনি কুষ্টিয়ার উদ্দেশে রওনা হয়েছেন।

ভিসির সঙ্গে থাকা একান্ত সহকারী কামরুল ইসলাম বুধবার দুপুর ১টার দিকে জানান, আবরারের পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে কুষ্টিয়ায় উদ্দেশে রওনা হয়েছেন ভিসি স্যার। তিনিও সঙ্গে রয়েছেন। তারা টাঙ্গাইল পার হচ্ছেন। কুষ্টিয়া গিয়ে তারা আবরারের পরিবারের সঙ্গে দেখা করবেন এবং তার কবর জিয়ারত করবেন।

এর আগে বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যার দু’দিন পর মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের তোপের মুখে তাদের বিভিন্ন দাবি মেনে নেয়ার ঘোষণা দেন ভিসি অধ্যাপক ড. সাইফুল ইসলাম।

বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদের দাফন হয় মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ১০টায়। তার আগেরদিন সোমবার রাত ১০টার দিকে ঢাকায় বুয়েট প্রাঙ্গণে আবরারের প্রথম জানাজাও হয়েছিল। জানাজায় অংশগ্রহণ এবং লাশ না দেখলেও আজ বুধবার কুষ্টিয়ায় আবরারের পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে রওনা হয়েছেন বুয়েটের উপাচার্য অধ্যাপক সাইফুল ইসলাম।

বুয়েট ছাত্র আবরার হত্যার ৪১ ঘণ্টা পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে দেখা না করা, আবরার যে হলে হত্যার শিকার হয়েছিলেন সেখানে না যাওয়া এবং জানাজায় অংশ না নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন বুয়েটের উপাচার্য।

গত রোববার (৬ অক্টোবর) রাতে আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। সোমবার ভোরে শের-ই-বাংলা হলের প্রথম ও দ্বিতীয় তলার সিঁড়ির মধ্যবর্তী জায়গায় আবরারের নিথর দেহ পাওয়া যায়। তার শরীরে অসংখ্য আঘাতের চিহ্ন ছিল।

আবরার ফাহাদ বুয়েটের ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের (ইইই) বিভাগের লেভেল-২ এর টার্ম ১ এর ছাত্র ছিলেন। তিনি শের-ই-বাংলা হলের ১০১১ নম্বর কক্ষে থাকতেন। তার বাড়ি কুষ্টিয়া শহরে। কুষ্টিয়া জেলা স্কুলে তিনি স্কুলজীবন শেষ করে নটরডেম কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করেন।

নতুনসময়/আইকে